‘আমি বোলার দেখি না, বল দেখি’, কীর্তি আজাদকে মোক্ষম দিলেন দিলীপ ঘোষ

Read Time:2 Minute

24 Hrs Tv:নিজস্ব প্রতিনিধি: সোমবার পশ্চিম বর্ধমান জেলার দুর্গাপুরের চতুরঙ্গ মাঠে বসন্ত উৎসবে সামিল হন বর্ধমান দুর্গাপুরের তৃণমূলের প্রার্থী কীর্তি আজাদ। সেখানেই ‘উনি ২ বারের, আমি কিন্তু ৩ বারের সাংসদ। শূন্য রানে আউট করে বাড়ি পাঠাব।’ রঙের উৎসবে সামিল হয়ে দিলীপ ঘোষকে আক্রমণের পথে হাটেন তৃণমূল প্রার্থী কীর্তি আজাদের। এরই পাল্টা শোনা গেল দিলীপ ঘোষের মুখে।

বিজেপি প্রার্থী হিসাবে দিলীপের নাম ঘোষণা হতেই কীর্তির হুঙ্কার, “উনি একবারের সাংসদ, একবারের বিধায়ক। কিন্তু আমি তিনবারের সাংসদ। শূন্য রানে আউট করে বাড়ি পাঠাব।” যদিও বিজেপি প্রার্থী দিলীপ ঘোষের বক্তব্য, “আমার বিপরীতে কে আছে দেখি না। আমি বোলার দেখি না, বল দেখি।”

কীর্তি আজাদকে প্রার্থী করার পরই বিজেপি বহিরাগত খোঁচায় বিদ্ধ করে তাঁকে। যদিও কীর্তির বক্তব্য, নরেন্দ্র মোদি গুজরাতের মানুষ। তিনিও বেনারসে ভোট লড়েছেন। কীর্তি আজাদের সংযোজন, ভারতবর্ষের হয়ে বিশ্বকাপ খেলেছেন তিনি। আর এবার বাংলার মুখ্যমন্ত্রীর হয়ে প্রতিনিধিত্ব করতে এসেছেন।

দোলের দিনে প্রচারে বেরিয়ে ১৯৮৩-র বিশ্বকাপ জয়ী দলের সদস্য প্রাক্তন এই ক্রিকেটার তথা তৃণমূল প্রার্থীর দাবি, বর্ধমান-দুর্গাপুরের তৃণমূল নেতৃত্বরা ইতিমধ্যেই ৯৯ শতাংশ ম্যাচ জিতে গিয়েছে। এক পার্সেন্ট তো সময়ের অপেক্ষা। লোকসভা নির্বাচনে তিনি-ই জয়লাভ করবেন, এমনটাই আশাবাদী কীর্তি আজাদ।এক সময় বিজেপিতে ছিলেন তিনি। পরে কংগ্রেসেও ছিলেন খুব কম সময়ের জন্য। এরপর তৃণমূলে যোগ দেন। সেই কীর্তি এবার বর্ধমান দুর্গাপুর কেন্দ্রে তৃণমূলের মুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *